নববধূকে ধর্ষণ; অভিযোগ নেয়নি পুলিশ !

gang rapes

ক্রাইম নিউজ সার্ভিস ॥ নাটোরের বাগাতিপাড়ায় আমেনা খাতুন (২০) নামে এক নববধূকে প্রতিবেশীর সহায়তায় উঠিয়ে নিয়ে ধর্ষণ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ধর্ষিতাকে নাটোর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ধর্ষিতার পরিবার ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, বাগাতিপাড়া উপজেলার ডুমরাই সারদিয়ার গ্রামের দিন মুজুর আফজালের মেয়ের সাথে গত রমজান মাসে একই উপজেলার  হিজলী পাবনাপাড়া গ্রামের জয়নালের ছেলে বুলবুলের সাথে বিয়ে হয়। আফজালের স্ত্রী মারা যাওয়ার পর থেকে আমেনা তার ফুপুর বাড়িতেই থাকত।

ঈদুল আযহার আগে সে তার ফুপুর বাড়িতে বেড়াতে আসে। প্রতিবেশী সেন্টু ও তার স্ত্রী সিমা গত সোমবার বিকেলে আমেনাকে বেড়ানোর কথা বলে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। পথে বড়াইগ্রাম উপজেলার আগ্রাণ গ্রামের মতি নামে এক যুবকের হাতে তুলে দেয় সিমা ও সেন্টু বাড়ি ফিরে আসে। আমেনাকে তাদের সাথে না দেখে সে কোথায় জানতে চায় তার পরিবার। কোন উত্তর না দেওয়ায় সন্দেহ হলে খোজাখুজি শুরু করে তারা। পরের দিন মঙ্গলবার দুপুরে অসুস্থ অবস্থায় আমেনাকে বাগাতিপাড়া সোনাপুর বাজার থেকে স্থানীয়দের মাধ্যমে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

আমেনার বাবা আফজাল জানান, মতি নামে ওই যুবক টাকার বিনিময়ে তার মেয়েকে সিমা ও স্বামী সেন্টুর মাধ্যমে নিয়ে ধর্ষণ করে। রাতভর পাশবিক নির্যাতনের পর তাকে দয়ারামপুরের সোনাপুর বাজারের পাশে ফেলে পালিয়ে যায়। পরে এলাকাবাসী উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।

আমেনার বাবা আফজার অভিযোগ করে বলেন, এ বিষয়ে থানায় মামলা করতে গেলে পুলিশ মামলা নেয়নি।

এ বিষয়ে ক্রাইম নিউজ সার্ভিস নাটোর জেলা প্রতিনিধি সুলতানুল আরিফিন কাজল বাগাতিপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুল ইসলামের কাছে জানতে চাইলে তিনি অভিযোগ অস্বিকার করে বলেন, এ বিষয়ে থানায় কোন অভিযোগ আসেনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Please follow and like us:
0

Related posts

Leave a Comment