মাদক ও জঙ্গিবাদ দেশের অভিন্ন দুই শত্রু

ক্রাইম নিউজ সার্ভিস ॥ শনিবার (৪ জানুয়ারি) দুপুরে নোয়াখালী শহীদ ভুলু স্টেডিয়ামে নোয়াখালী জেলা পুলিশ কর্তৃক আয়োজিত কমিউনিটি পুলিশিং সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আওয়ামী লিগের সাধারন সম্পাদক, সড়ক ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের মাদক ও জঙ্গিবাদকে ‘অভিন্ন দুই শত্রু’ হিসেবে উল্লেখ করেন।

তিনি বলেন, ‘জঙ্গিবাদ ও মাদকের ভয়াবহতা আজ জাতীয় সমৃদ্ধিতে প্রধান অন্তরায় হয়ে দাঁড়িয়ে। তারুণ্যকে ধ্বংস করছে মাদক, তারুণ্যকে বিপথগামী করছে জঙ্গিবাদ। আজ ইয়াবা নতুন প্রজন্মের ভবিষ্যতকে ধ্বংস করে দিচ্ছে। এভাবে তারুণ্য ধ্বংস হতে থাকলে দেশের উন্নয়নে একটি বড় শূন্যতা তৈরি হবে। দেশের সামগ্রিক সমৃদ্ধি বজায় রাখতে জঙ্গিবাদ ও মাদককে রুখতে হবে।’

এ জন্য জনপ্রতিনিধি ও সর্বস্তরের মানুষকে সতঃস্ফুর্ত ও আন্তরিকতার সাথে প্রশাসনকে সহযোগিতা করার আহ্বান জানান।

মন্ত্রী জঙ্গিবাদ ও মাদকবিরোধী কার্যক্রমে পুলিশের ভূমিকার প্রশংসাও করেছেন। তিনি বলেন গুটি কয়েক অসৎ পুলিশ সদস্যের ঘুষ, দুর্নীতি ও অন্যায়ের দায়ভার পুরো বাহিনী নিতে পারে না। সবাই বলে ‘শুধু পুলিশ ঘুষ খায় তা নয়, রাজনীতিকরাও ঘুষ খায়। টাকার বিনিময়ে চাকরির জন্য সুপারিশ, তদবির সবই করে রাজনীতিকরা। রাজনীতিকদেরও সৎ হতে হবে।

সততা ও নিষ্ঠার সাথে রাজনীতি করার কারণে তার রাজনৈতিক গুরু জননেত্রী শেখ হাসিনা দেশের ঐতিহ্যবাহী দল আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব তাকে দিয়েছেন। তার সেই সম্মান রাখতে হবে। মনে রাখবেন সততাই শক্তি সততাই মুক্তি। ত্যাগীদের মূল্যায়ন হবেই।

সমাবেশে প্রধান আলোচক ছিলেন, পুলিশের মহাপরিদর্শক একেএম শহীদুল হক। নোয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার মো. ইলিয়াছ শরীফের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন, নোয়াখালী জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ডা. এবিএম জাফর উল্যা, সংসদ সদস্য মোর্শেদ আলম, মামুনুর রশিদ কিরণ, এইচএম ইব্রাহিম, আয়েশা ফেরদাউস, জেলা প্রশাসক বদরে মুনির ফেরদৌস, জেলা কমিউনিটি পুলিশিং কমিটির সভাপতি অধ্যক্ষ কাজী রফিক উল্যাহ, সাধারণ সম্পাদক মিয়া মোহাম্মদ শাহ্জাহান। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন, জ্যেষ্ঠ সহকারী পুলিশ সুপার (চাটখিল সার্কেলের) মো. মাসুম প্রমুখ।

Please follow and like us:
0

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

SuperWebTricks Loading...